শুক্রবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২২

| ২৫ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

KSRM
মহানগর নিউজ :: Mohanagar News

প্রকাশের সময়:
১৪:০০, ২৪ নভেম্বর ২০২২

মহানগর ডেস্ক

ইফা কর্মকর্তাকে কম্বল চাপা দিয়ে হত্যা, ঘাতক স্ত্রী ধরা

প্রকাশের সময়: ১৪:০০, ২৪ নভেম্বর ২০২২

মহানগর ডেস্ক

ইফা কর্মকর্তাকে কম্বল চাপা দিয়ে হত্যা, ঘাতক স্ত্রী ধরা

চট্টগ্রামে বাংলাদেশ ইসলামিক ফাউন্ডেশনের (ইফা) এক কর্মকর্তা খুন হয়েছেন। বুধবার রাত সাড়ে ১১টার দিকে নগরীর পাঁচলাইশ নাজিরপাড়া (সুন্নিয়া মাদ্রাসা) নিজাম কলোনিতে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। 

হত্যাকাণ্ডের শিকার ইফা কর্মকর্তার নাম আব্দুল মান্নান (৫৮)। তিনি ইসলামিক ফাউন্ডেশন ফটিকছড়ি শাখার মডেল কেয়ারটেকার হিসেবে কর্মরত ছিলেন। তার গ্রামের বাড়ি চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি উপজেলার বাঘমারা পুকুরের বুড়িপুকুর পাড় এলাকায় বলে জানা গেছে।

পুলিশ জানিয়েছে, আব্দুল মান্নানের দুই স্ত্রী। প্রথম স্ত্রী খাদিজা বেগম কম্বল চাপা দিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছে। হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার অভিযোগে আব্দুল মান্নানের প্রথম স্ত্রীকে আটক করেছে পুলিশ।

পাঁচলাইশ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নাজিম উদ্দিন মজুমদার জানান, আব্দুল মান্নানের দুই স্ত্রী। দ্বিতীয় স্ত্রী নিয়ে তিনি ফটিকছড়িতে গ্রামের বাড়িতে থাকেন। তার প্রথম স্ত্রী খাদিজা বেগম (৩০) দুই সন্তান নিয়ে নগরীর নাজিরপাড়ায় থাকেন।মাঝে মাঝে প্রথম স্ত্রীর বাসায় আসেন। তাদের এক ছেলে স্থানীয় একটি স্কুলে দশম শ্রেণিতে পড়ে। মেয়েকে সম্প্রতি আবাসিক মাদ্রাসায় দেওয়া হয়েছে।

প্রাথমিক তদন্তে জানা গেছে, বুধবার মান্নান তার অসুস্থ ভগ্নিপতিকে নিয়ে খাদিজার বাসায় আসেন। দ্বিতীয় বিয়ের পর থেকে মান্নান প্রথম স্ত্রীর ভরণপোষণ প্রায় বন্ধ করে দেন। এ নিয়ে তাদের মধ্যে কয়েক বছর ধরে ঝগড়া চলে আসছিল। গত (বুধবার) রাতে ঝগড়ার চূড়ান্ত পর্যায়ে খাদিজা কম্বল দিয়ে স্বামীর মুখ চেপে ধরে। এতে শ্বাসরোধ হয়ে মান্নান সেখানেই মারা যান।’

ওসি নিজাম উদ্দিন জানান, প্রতিবেশিরা খাদিজার ঘর থেকে গোঙানির শব্দ শুনে জাতীয় জরুরি সেবা নম্বর ট্রিপল নাইনে ফোন করে বিষয়টি পুলিশকে জানায়। পুলিশ গিয়ে মান্নানের লাশ উদ্ধার করে খাদিজাকে গ্রেফতার করে। খাদিজা খুন করার বিষয়টি প্রাথমিকভাবে স্বীকার করেছে।

ঘটনার সময় খাদিজার ছেলে ও মান্নানের ভগ্নিপতি একই বাসার আরেকটি কক্ষে ঘুমাচ্ছিলেন। ঘটনার বিষয়ে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে বলে ওসি জানিয়েছেন।

এসএ