শুক্রবার ০৯ ডিসেম্বর ২০২২

| ২৫ অগ্রাহায়ণ ১৪২৯

KSRM
মহানগর নিউজ :: Mohanagar News

প্রকাশের সময়:
১৭:০৯, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২

নিজস্ব প্রতিবেদক

রাতে যাত্রীর ক্ষুদে বার্তা—ভোরে বরখাস্ত রেলকর্মী

প্রকাশের সময়: ১৭:০৯, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২২

নিজস্ব প্রতিবেদক

রাতে যাত্রীর ক্ষুদে বার্তা—ভোরে বরখাস্ত রেলকর্মী

সকালে ট্রেনে টিকিট চেকিং বিশেষ অভিযান পরিচালনার ঘোষণা ছিল। আর এ অভিযানের নেতৃত্ব দেওয়ার কথা খোদ পূর্বাঞ্চল রেলওয়ের মহাব্যবস্থাপক (জিএম) জাহাঙ্গীর হোসেনের। কিন্তু গভীর রাতে জিএমের মোবাইলে ট্রেনে অবৈধ যাত্রী পরিবহনের ছবি ও তথ্য পাঠিয়ে দেন এক যাত্রী। ব্যস, ভোরে বিষয়টির প্রাথমিক সত্যতা নিশ্চিত করে বরখাস্ত করার নির্দেশ দেওয়া হয় এ ঘটনায় জড়িত এক এটেনডেন্টকে।

শনিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) লাকসাম পরিদর্শনে যাওয়ার পথে বরখাস্তের এ আদেশ দেন জিএম জাহাঙ্গীর হোসেন। 

বরখাস্তের খড়গ মাথায় ওঠা এ এটেনডেন্টের নাম পেয়ারুল ইসলাম। ঢাকা-চট্টগ্রাম রুটের ‘চট্টগ্রাম মেইল’ট্রেনে এটেনডেন্টের দায়িত্বে ছিলেন তিনি। 

রেলওয়ে সূত্র জানায়, শুক্রবার রাতে ঢাকা থেকে ট্রেনটি চট্টগ্রামে আসার পথে অবৈধ যাত্রী তুলেন এটেনডেন্ট পেয়ারুল ইসলাম। রাতে ট্রেনের কোনো এক যাত্রী বিষয়টি মোবাইলে জিএম জাহাঙ্গীর হোসেনকে জানান। পরে শনিবার ভোরে চট্টগ্রাম টু লাকসাম রুটে বিশেষ টিকিট চেকিং কার্যক্রম পরিচালনার সময় পেয়ারুলকে বরখাস্তে নির্দেশ দেন জিএম।

এর আগে সকাল ৭টা ২০ মিনিটে চট্টগ্রাম সিলেট রুটের পাহাড়িকা এক্সপ্রেস ট্রেনে বিশেষ টিকিট চেকিং কার্যক্রম পরিচালনা করেন জিএম জাহাঙ্গীর হোসেন। এসময় ট্রেনের পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখা, খাবারের মান নিশ্চিত করাসহ সার্বিক বিষয় তদারকি করা হয়।

রেলকর্মী পেয়ারুলকে বরখাস্তের বিষয়ে জানতে চাইলে জিএম জাহাঙ্গীর হোসেন মহানগর নিউজকে বলেন, রাতে এক যাত্রী ফোনে জানিয়েছে চট্টগ্রাম মেইল ট্রেনে অবৈধ যাত্রী পরিবহন হচ্ছে। সকালে এ ঘটনায় জড়িত একজনের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দিয়েছি। যাত্রীসেবা নিশ্চিতে আমরা বদ্ধপরিকর। 

এপি/এসএ