রোববার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২

| ৯ আশ্বিন ১৪২৯

KSRM
মহানগর নিউজ :: Mohanagar News

প্রকাশের সময়:
১১:০৫, ১৫ আগস্ট ২০২২

রাঙ্গুনিয়া প্রতিনিধি

চট্টগ্রাম-কাপ্তাই আঞ্চলিক মহাসড়কের পাশে দেবে গেছে মাটি, দুর্ঘটনার শঙ্কা

প্রকাশের সময়: ১১:০৫, ১৫ আগস্ট ২০২২

রাঙ্গুনিয়া প্রতিনিধি

চট্টগ্রাম-কাপ্তাই আঞ্চলিক মহাসড়কের পাশে দেবে গেছে মাটি, দুর্ঘটনার শঙ্কা

চট্টগ্রাম-কাপ্তাই মহাসড়কের একপাশে ড্রেনের পানি চলাচলের কারণে মাটি দেবে গেছে

চট্টগ্রাম-কাপ্তাই মহাসড়কের একপাশে ড্রেনের পানি চলাচলের কারণে মাটি দেবে গেছে।  গুরুত্বপূর্ণ সড়ক হওয়ায় দেবে যাওয়া স্থানে মাটির বস্তা দিয়ে সতর্ক সংকেত পতাকা দেওয়া হয়েছে। তবে দেবে যাওয়া স্থান কখন সংস্কার করা হবে, সে বিষয়ে জানাতে পারেনি সড়ক ও জনপদ বিভাগ। 

এদিকে কাপ্তাই রাস্তারমাথা থেকে কাপ্তাই পর্যন্ত ৪৭ কিলোমিটার এ সড়কে চলাচল করে দূরপাল্লার বাস ও ট্রাক। এছাড়া যাত্রীবাহী সিএনজিচালিত অটোরিকশা। এতেই বিপদজনক হয়ে পড়েছে দেবে যাওয়া স্থান। দূরপাল্লার যানবাহনের চালকরা রাতের অন্ধকারে বুঝতে না পারলে দুর্ঘটনার শঙ্কা রয়েছে। দ্রুত গুরুত্বপূর্ণ সড়কটি সংস্কার করা দরকার বলছে যাত্রী ও যানবাহন চালকরা।

সরেজমিনে দেখা যায়, চট্টগ্রাম-কাপ্তাই সড়কের রাঙ্গুনিয়া উপজেলার জিয়ানগর এলাকায় কাপ্তাই সড়কের একপাশে মাটি দেবে গিয়ে সড়কের নিচের একাংশ ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে গেছে। অপরপাশে পাহাড় ধসে মাটি চলে আসতে শুরু করেছে সড়কে। এতে ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছে বিভিন্ন পরিবহন।

কাপ্তাই রোডের বাস চালক হুমায়ূন কবির বলেন, দেবে যাওয়া স্থানে রাস্তায় যানজট না থাকায় গাড়ির গতিরোধ বেশি থাকে। দ্রুতগামী গাড়ি সেই স্থানে গেলেই নিয়ন্ত্রণ করা কষ্টসাধ্য হয়ে যায়। অপরদিকে মালবাহী ট্রাক আসলে বাসের গতি কমিয়ে দাঁড়িয়ে থাকি। না দাঁড়িয়ে অতিক্রম করলে সড়ক দেবে গাড়ি গর্তে পড়ে যাওয়ার আশংকা রয়েছে।

অটোরিকশা চালক সুমন জানান, সপ্তাহখানেক আগে দেবে যেতে দেখা গেছে সড়কটি। পাশে একটি ড্রেন থাকায় মাটি সরে গেছে। দ্রুত সংস্কার করা না হলে বড় ধরনের বিপদ হতে পারে। কয়েকদিন আগে দেবে যাওয়া স্থানে একটি বাস অপরদিক থেকে আসা ট্রাককে অতিক্রম করতে গিয়ে খাদে পড়ে যেতো, অল্পের জন্য রক্ষা পেয়েছে যাত্রীবাহী বাস। লাল পতাকা টাঙানো হলেও সড়কের নিচে মাটি না থাকায় যেকোনো সময় সড়ক ভেঙে যেতে পারে। এতে দুর্ঘটনার শঙ্কা রয়েছে।

সড়ক ও জনপথ বিভাগের রাঙ্গুনিয়া-কাপ্তাই অংশের ওয়ার্ক সুপারভাইজার রাসেল দেওয়ান জানান, সড়কটির পাশে ড্রেনের পানি চলাচল করায় মাটি সরে গেছে। দেবে যাওয়ার বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ অবহিত করা হয়েছে। তারা চট্টগ্রাম থেকে গাড়ি পাঠিয়ে মাটির বস্তা দিয়ে সতর্ক সংকেত স্থাপন করেছে।
 

কেডি